ইফতারে থাকুক সুস্বাদু দুই ফলের স্মুদি

ইফতারে থাকুক সুস্বাদু দুই ফলের স্মুদি ¦এবছর আমাদের রোজা রাখতে হচ্ছে প্রচণ্ড গরমে মধ্যে। তা্ই আমাদের নজর দিতে হবে শরীরে পানির ঘাটতি যেন না থাকে। রোজার পর ইফতারে পুষ্টিকর খাবার খাওয়া খুবই জরুরি। এক্ষেত্রে ফলের কোনো বিকল্প নেই। আমরা সবাই জানি প্রায় সব ধরনের ফলেই কম/বেশি পুষ্টি থাকে। তাই ইফতারে তৈরি করতে পারেন বিভিন্ন ফলের স্মুদি। টিম লিসোনারির আজকের আয়োজনে থাকছে কিভাবে তৈরি করবেন স্মুদি।

পেঁপে ও খেজুরের স্মুদি

স্মুদির তৈরি করতে যা প্রয়োজন হবে আমোদের:-

১. পাকা পেঁপে -১টি

২. খেজুর- ৬টি

৩. পানি- ১ কাপ

৪. দুধ- আধা কাপ

৫. মধু- ২ টেবিল চামচ।


আরো পড়ুণ: ইফতারে তরমুজের শরবত তৃষ্ণা মেটাবে
আরো পড়ুণ: রামাদান – মুহা.আল মামুন ইবনে শহিদ
আরো পড়ুণ: এই রমজানেও হোক শরীরচর্চা
আরো পড়ুণ: অবহেলা নয় ভালোবাসুন – নুর আতিকুন নেছা


যেভাবে পেঁপে ও খেজুরের স্মুদি তৈরি করবেন:-

প্রথমে পেঁপে টুকরা করে কেটে নিতে হবে। পেঁপে, বীজ ছাড়ানো খেজুর, মধু, দুধ, পানি একসঙ্গে ব্লেন্ড করুন। কয়েক টুকরা বরফ দিয়ে আবার ব্লেন্ড করুন। এবার ঠান্ডা ঠান্ডা পরিবেশন করুন পেঁপে-খেজুরের স্মুদি।

কলা ও খেজুরের স্মুদি

স্মুদির তৈরি করতে যা প্রয়োজন হবে আমোদের:-

১. পাকা সাগর কলা- ২টি

২. খেজুর-৬টি

৩. তরল দুধ- ২৫০ মিলিলিটার

৪. ভ্যানিলা এসেন্স- ২ফোঁটা

৪. বরফ পরিমাণমতো।

যেভাবে কলা–খেজুরের স্মুদি তৈরি করবেন:-

কলা খোসাসহ ২ ঘণ্টা ডিপ ফ্রিজে রেখে বরফের মতো শক্ত করে নিতে হবে। এতে করে স্মুদি বেশ ঘন হয়। নির্দিষ্ট সময় পর কলা ফ্রিজ থেকে বের করে খোসা ফেলে পাতলা গোল করে কেটে নিন। ওপরে উল্লিখিত সব উপকরণ একসঙ্গে ব্লেন্ডারে দিয়ে ব্লেন্ড করে ঠান্ডা পরিবেশন করতে হবে। ভ্যানিলা এসেন্সের বদলে দারুচিনিগুঁড়া ব্যবহার করলেও খুব সুন্দর সুগন্ধ আসবে স্মুদি থেকে।

 

যুক্ত হোন আমাদের ইউটিউব চ্যানেলে এখানে ক্লিক করুণ।

 

 

 

 

Leave a Comment