গেস্ট পোস্ট কি
গেস্ট পোস্ট কি? Guest Post কেন এবং কিভাবে করবেন

গেস্ট পোস্ট কি ? Guest Post কেন এবং কিভাবে করবেন

আপনি যদি একজন সফল ব্লগার হয়ে থাকেন তাহলে Guest Post গেস্ট পোস্ট কি এবং কেন গেস্ট পোস্ট করবেন তা আপনার জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। আপনি যখন নিজের ব্লগে অফ পেজ এসইও করতে যাবেন তখন গেস্ট পোস্ট গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে।

আপনি বড় বড় ব্লগ সাইট গুলো ভিজিট করে দেখবেন তারা Guest Post এর সকল টেকনিক গুলো সব সময় ফলো করে।

আমাদের নতুন আরো একটি আর্টিকেল এ আপনাকে স্বাগতম। আজকে কথা বলব গেস্ট পোস্ট নিয়ে। আমরা আপনাদের জানাব গেস্ট পোস্ট কি ? কিভাবে গেস্ট পোস্ট করতে হয় এবং কোথা থেকে গেস্ট পোস্ট ওয়েবসাইট গুলো খুজে বের করবেন সে সমস্ত বিষয়বস্তু নিয়ে।

গেস্ট পোস্ট কি ? (What Is Guest Post)

গেস্ট পোস্ট হল এমন একটা প্লাটফর্ম যেখানে আপনার একটা আর্টিকেল পাবলিশ হবে এবং যেখান থেকে আপনি একটা ব্যাকলিংক পাবেন।

মনে রাখবেন গেস্ট পোস্ট হচ্ছে সবচেয়ে ইফেক্টিভ Backlinks প্রসেস। যারা ব্লগিং করে অথবা ওয়েবসাইটকে রেংক করাতে চায় তারা বেশিরভাগ মানুষ গেস্ট পোষ্টের উপর ডিপেন্ড করে থাকে দীর্ঘ সময়।

হয়তো ভালো একটা গেস্ট পোস্ট করতে আপনাকে কিন্তু পেমেন্ট করতে হতে পারে, আবার কেউ কেউ এটা ফ্রিতে প্রদান করে থাকে, তবে এটা তাদের কন্ডিশন অনুযায়ী চলমান আপনি তাদের কন্ডিশন পড়ে বুঝতে পারবেন তারা গেস্ট পোস্ট কিভাবে চালু রেখেছে।

অবশ্য আমাদের গেস্ট পোস্ট সিস্টেম রয়েছে যা আপনি চাইলে এখানে ক্লিক করে দেখে আসতে পারেন। যদিও এটা সব ব্লগিং ওয়েবসাইটে থাকেনা কিন্তু যারা ব্যাকলিংক নেয়ার সুযোগ দিয়ে থাকে তাদের ওয়েবসাইটে এটা থাকে অবশ্য এটা একটি খুব ভালো সুযোগ।

গেস্ট পোস্ট কেন করবেন? (Why do Guest Post)

মূলত Guest Post করার উদ্দেশ্য সবার কাছে আলাদা আলাদা হয়ে থাকে। ব্যক্তিগতভাবে আমি গেস্ট পোস্ট করি এজন্য যে আমার ওয়েবসাইটে রেংকিং আরো ভালো হবে আমার ওয়েবসাইট গুগলের প্রথম পেইজে আসবে এজন্য।

আবার অনেকের ইচ্ছা এমন হতে পারে যে নিজের লেখা গুলো বিভিন্ন ওয়েবসাইটের মাধ্যমে প্রকাশ করতে শুধুমাত্র গেস্ট পোস্ট লিখে থাকে আবশ্য এখানে Backlinks অথবা অন্যকোন সার্থক প্রয়োগ করা হয় না।

আরো পড়ুন:  কিভাবে এইচএসসি পরীক্ষার রেজাল্ট বের করব?

কিন্তু, যখন আপনি একজন ব্লগার তখন (Guest Post) গেস্ট পোস্ট করার সঠিক উদ্দেশ্য হবে একটি ব্যাকলিংক তৈরি করা।

প্রত্যেকটা ব্লগারের টেস্ট পোস্ট করার মূল উদ্দেশ্যই হচ্ছে ব্যাকলিংক।

কেননা একটি ভালো মানের ব্যাকলিংক আপনার সাইটকে অনেকদূর এগিয়ে নিতে সহায়তা করবে।

এ বিষয়ে আমাদের একটি আর্টিকেল ইতিমধ্যে রয়েছে। ব্যাকলিংক সম্পর্কে জানতে এখানে ক্লিক করুন

একজন ব্লগারের অবশ্যই অফ পেজ এসইও সম্পর্কে ধারনা থাকে আমি আশা করব আপনারা মোটামুটি ধারণা রয়েছে।

এসইও সম্পর্কে জানতে এখানে ক্লিক করুন। মনে রাখবেন অফ পেজ এসইও এর প্রধান টেকনিক হলো লিংক বিল্ডিং করা।

আপনার ব্লগ বা ওয়েবসাইটের ডোমেইন অথরিটি এবং পেজ অথরিটি স্কোর বাড়িয়ে নেওয়ার জন্য লিংক বিল্ডিং অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ।

গুগোল টপ রেংক পেতে আপনার ডোমেইন অথরিটি এবং পেইজ অথরিটি বৃদ্ধি করার বিকল্প নেই।

এটি কেবলমাত্র আমার ধারণা নয় এটি বড় বড় অভিজ্ঞ সম্পন্ন ব্যক্তিদের ধারণা এবং রিসার্চ সম্পূর্ণ আইডিয়া।

লিংক বিল্ডিং করার যতগুলো টেকনিক রয়েছে তার মধ্যে সবথেকে সেরা টেকনিক হলো বেস্ট পোস্ট করা।

গেস্ট পোস্ট কিভাবে করবেন? (How to do Guest Post)

আমরা ইতিমধ্যে আলোচনা করেছি গেস্ট পোষ্টের মাধ্যমে আপনার ওয়েবসাইটে একটি ব্যাকলিংক পেতে পারেন।

এবং এই ব্যাকলিংক এর সহায়তায় আপনার ওয়েবসাইটকে গুগলের টপ পেজে নিয়ে আসার সম্ভাবনা থাকে।

এখন, গেস্ট পোস্ট করার জন্য বিভিন্ন ওয়েবসাইট রয়েছে বিভিন্ন মাধ্যমের অনেকে ফ্রিতে ব্যাকলিংক প্রদান করে থাকে আবার অনেকে টাকা নিয়ে ব্যাকলিংক প্রদান করে থাকে।

এখানে যদি আপনার টার্গেট হয়ে থাকে যে ফ্রিতে গেস্ট পোস্ট করে একটি ব্যাকলিংক নেওয়া তাহলে আপনার একটু কষ্ট করতে হবে।

যেমন- আপনি যে ওয়েবসাইটে ব্যাকলিংক (Backlinks) নিতে চান সেই ওয়েবসাইট এর মালিকের সঙ্গে যোগাযোগ করুন, হয়তো আপনার যোগাযোগ মাধ্যম ইমেইল হয়ে থাকবে কেননা প্রত্যেকটা ওয়েবসাইটে কন্টাক্ট পেজ এর মধ্যে কেবলমাত্র ইমেইল প্রদান করা হয়ে থাকে বেশিরভাগ সময়।

ওয়েবসাইটের মালিকের সাথে যোগাযোগ করার সময় আপনার আচরণ আপনার লেখাগুলো শুদ্ধ এবং সঠিকভাবে লিখুন।

আরো পড়ুন:  কিভাবে ইউটিউব ভিডিওর ভিউ বাড়াবো ?

ওয়েবসাইটের মালিক যেন বুঝতে পারে যে আপনি নিয়মিত তার আর্টিকেলগুলো করছেন এবং তার ওয়েবসাইটকে ভিজিট করছেন।

সাজিয়ে গুছিয়ে খুব সুন্দর ভাবে মালিকের কাছে একটি ইমেইল পাঠান এবং আপনার লেখা একটি পোস্ট পাঠান যেটা তার ওয়েবসাইটে পাবলিশ করতে পারে।

অবশ্যই আপনার লেখা পোস্ট মিনিমাম ৩০০ শব্দের বেশি রাখার চেষ্টা করুন।

আশাকরি উপরে যে বিষয়গুলো আলোচনা করা হয়েছে তার মাধ্যমে সহজে বোঝাতে পেরেছি যে গেস্ট পোস্ট কি এবং কিভাবে করে ডোমেইন অথরিটি এবং পেইজ অথরিটি বৃদ্ধি করা।

গেস্ট পোস্ট করার পূর্বে যে বিষয় খেয়াল রাখবেন

গেস্ট পোস্ট Guest Post করার পূর্বে কিছু বিষয় আপনাকে অবশ্যই খেয়াল রাখতে হবে।

আপনাকে জানতে হবে কোন ধরনের ওয়েবসাইটগুলোতে গেস্ট পোস্ট করতে হবে এবং গেস্ট পোস্ট করলে আপনার ওয়েবসাইটের ডোমেইন অথরিটি বৃদ্ধি পাবে।

১. যে ওয়েবসাইটে গেস্ট পোস্ট করবেন সে ওয়েবসাইটের ডোমেইন অথরিটি যদি ৮- ১২ হয়ে থাকে তাহলে গেস্ট পোস্ট না করাই ভালো।

২. ওয়েবসাইটে যদি পর্যাপ্ত ভিজিটর না থেকে থাকে তাহলে গেস্ট পোস্ট না করা বুদ্ধিমানের কাজ। মনে রাখবেন, যে ওয়েবসাইটে গেস্ট পোস্ট করবেন সেখানে যদি পর্যাপ্ত ভিজিটর থাকে তাহলে আপনার গেস্ট পোস্ট করা সার্থক হবে এবং আপনি যে ব্যাকলিংক তা পাবেন সেটি খুব ভালো কাজে আসবে।

৩. যে ওয়েবসাইট থেকে আপনি ব্যাকলিংক কি নিতে চাচ্ছেন সেই ওয়েবসাইটের স্পাম স্কোর চেক করুন। স্পাম স্কোর যদি অতিরিক্ত থাকে তাহলে সেই ওয়েবসাইট থেকে ব্যাকলিংক নিয়ে আপনি লাভবান হবেন না। এতে নিজের আরো ক্ষতি হবে।

৪. এমন ওয়েবসাইটের মাধ্যমে গেস্ট পোস্ট নিন যেখানে নিয়মিত আর্টিকেল পাবলিশ করা হয়।

কেননা গুগোল আপডেটেড ওয়েবসাইটগুলো পছন্দ করে এবং এগুলোকে বেশি প্রায়োরিটি দিয়ে থাকে।

আরো পড়ুন:  এডােবি ইলাস্ট্রেটর কি? প্রোগ্রামটি খোলার প্রক্রিয়া

৫. আপনার ব্লগ ওয়েবসাইটের নিসের সাথে মিল আছে এমন ওয়েবসাইটের সাথে লিঙ্ক করবেন।

এতে আপনি ভালো পরিমাণে ভিজিটর পাবেন এবং আপনার ব্যাকলিংক সার্থক হবে।

অনেকে জানতে চান ডোমেইন অথোরিটি চেক করবো কিভাবে। তাদের জন্য একটি লিংক দিচ্ছি।

এই লিংক গিয়ে Domain Authority জেনে আসতে পারবেন। লিংক – https://ahrefs.com/website-authority-checker

গেস্ট পোস্ট করার জনপ্রিয় কিছু বাংলা ওয়েবসাইট

বাংলাদেশের জনপ্রিয় কিছু বাংলা ব্লগ ওয়েবসাইটের নাম উল্লেখ করা হয়েছে।

সেখানে আপনারা গেস্ট পোস্ট করে নিজের ওয়েবসাইটে ডোমেইন অথরিটি এবং পেইজ অথরিটি বৃদ্ধি করে নিতে পারবেন।

তবে মনে রাখবেন গেস্ট পোস্ট Guest Post করার পূর্বে তাদের সাথে যোগাযোগ করা আবশ্যক।

ওয়েবসাইটের মালিক যেন বুঝতে না পারে যে আপনার টার্গেট ব্যাকলিংক তাহলে হয়তো মালিক রাজি নাও হতে পারে।

১. banglatech

২. banglatech24

৩. techtune

৪. courstika

৫. lessonery

শুধু এগুলো নয় আরো অসংখ্য ওয়েবসাইট আছে যেগুলো আপনি গুগলের সার্চ করে খুঁজে বের করতে পারেনা।

আমাদের ওয়েবসাইটে গেস্ট পোস্ট ফ্রিতে করতে চাইলে এখানে ক্লিক করুন এবং বিস্তারিত পরে আসুন।

গেস্ট পোস্ট করার সুবিধা নিয়ে ইতিমধ্যে আমাদের ওয়েবসাইটে একটি আর্টিকেল রয়েছে সেটি পড়তে চাইলে এখানে ক্লিক করুন।

শেষ কথা

আপনারা যারা নতুন ব্লগিং শুরু করেছেন অথবা দীর্ঘদিন যাবৎ ব্লগিং করে আসছেন তাদের জন্য আমাদের ওয়েবসাইটে আরো বিভিন্ন টেক আর্টিকেল প্রকাশিত আছে চাইলে সেগুলো পড়ে আসতে পারেন।

আজকে আমরা জানলাম গেস্ট পোস্ট কি এবং গেস্ট পোস্ট কেন করবেন এবং কিভাবে গেস্ট পোস্ট করবেন এই সম্পর্কে বিস্তারিত।

গেস্ট পোষ্ট সম্পর্কে আপনার যদি কোন প্রশ্ন থেকে থাকে তাহলে কমেন্ট এর মাধ্যমে আমাদের নিকট জানাতে পারেন আমরা খুব দ্রুত সময়ের মধ্যে আপনার প্রশ্নের উত্তর দিয়ে দিব।

অনুগ্রহ করে আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন।  আমাদের ফেসবুক পেইজ এ লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন

Check Also

কিভাবে ইউটিউব ভিডিওর ভিউ বাড়াবো

কিভাবে ইউটিউব ভিডিওর ভিউ বাড়াবো ?

কিভাবে ইউটিউব ভিডিওর ভিউ বাড়াবো এমন প্রশ্ন প্রত্যেকটা নতুন ইউটিউবারদের মধ্যে বিরাজমান রয়েছে। YouTubing শুরু …

Leave a Reply

Your email address will not be published.