মানবতা – সুমাইয়া শাহরীন

মানবতা – পৃথিবী আজ থমকে দাঁড়িয়েছে
মানব বিবেকের ওপর
সকলেই শুধু করছে হানাহানি
তুলছে দুঃস্বপ্নের ঝড়।
কোথাও নেই শান্তি নেই কোন নিরাবতা
চারিদিকে কর্কশ বানী
অবিচার আর নিষ্ঠুর বর্বরতা।
রাস্তায় মাঠে চলছে রাহাজানি
কতইনা রক্তের বন্যা!
রাত দুপুরে নিদ নেই চোখে
ভেসে আসে ফুকারী কান্না।
প্রীতির বন্ধনে নেই কারো ডোর
সকলেই ছিন্নছাড়া।
বাবা-মা,ভাই-বোন চিনেনা কেউ
কাহাকে এমনই বাঁধনহারা।
জলে স্থলে মানুষ চালায় স্বজোরে
বিবেকের বিরোধীতা,
ঘরে ঘরে শুধু হিংসা বিদ্বেষ
বন্ধু-বান্ধব,ভাইয়ে ভাইয়ে হত্যা।
ছদ্মবেশী সেজে জাগায় সাধারণ মনে
ভয় আর তীব্র ভাবনা,
চুরি-ডাকাতি, অপকর্ম যত
বেছে নিয়েছে এসবই জীবন সাধনা।
অজান্তেই টলছে ঘরে বাইরে
সদা ভয়ালের আনাগোনা,
অশান্তি করছে বিরাজ যত্রতত্র
কাটছে না অন্যায়ের বিরম্বনা।
দুষ্টুমতি দানব আজি এই অশান্তির শ্রষ্টা
সমাজ-সংসার, ধ্বংসের কারিগর,
তারা সাগর অববাহিকার মাঝে জাগিয়ে চর বাঁধে স্বপ্নের বাড়িঘর।
দূর্নীতির ছলে দুনিয়া কাঁপায়
হানে কুমন্ত্রের কালো ঝাপটা,
পৃথিবীর কাছে কে সে-
কিবা তার মর্যাদা?
একে অপরকে করে নকল
ঘৃনা আর ব্যাঙ্গ,
তারা ভাবেনি কল্যাণ নেই এতে
আছে শুধু নরকের তারঙ্গ।
ধর্মবিদ্যা মানেনা শৃঙ্খলা
এরা নির্লজ্জ দূর্দান্ত ভয়াল,
এমন নরকী নরদানব
যেন লেজকাটা শিয়াল।
কে করিবে এর বিচার-
কে করিবে বিরোধীতা?
রক্ষে নেই তার,ভবে স্থান হবে না
মরবে যথাতথা।
আজি এসবেই ক্ষুব্ধ পৃথিবী,
হারিয়েছে আলোর রেখা,
মায়াহীন মানব মনে ক্রোধের শক্ত ঘাঁটি
আগুন কেও করেনা আশঙ্কা।
এই অত্যাচার আর অপকর্মের কি
হবেনা দমন? হবেনা কভু অবসান?
অস্বস্তির অমানিশা কেটে
পৃথিবী আবার গাইবে কবে
শান্তির জয়গান?
এসব কুকর্ম যেদিন হবে নির্মূল
দমিবে দূরাত্মা
সেদিনই পৃথিবী গাইবে সুখের গান
আর ফিরবে মানবতা।

অনুগ্রহ করে আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন।  আমাদের ফেসবুক পেইজ এ লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন

Leave a Comment